Biography

Author Picture

শাহমান মৈশান

নাট্যকার, প্রাবন্ধিক, শিল্পসমালোচক ও নির্দেশক।
তার রচিত অশেষকৃত্য, ফণা, বিদেহ, সুরাক, দক্ষিণাসুন্দরী, ওথেলো-ভূতেলো, কালচৌতিশা প্রভৃতি নাটক নতুন নাট্যভাষার সূচনা করেছে। লোকপুরাণ থেকে বিনির্মাণ করেছেন নাটক ভেলুয়া ও নসিমন। যৌথভাবে রচনা করেছেন বেহুলার ভাসান। বাংলায় অনুবাদ ও পুনর্লিখন করেছেন বার্টল্ট ব্রেখটের দ্য মেজারস টেকেন অবলম্বনে সিদ্ধান্ত এবং ফ্রাঙ্ক ওয়েডেকিন্ডের স্প্রিং আওয়েকনিঙ অবলম্বনে বসন্ত জাগরণ। এছাড়াও অনুবাদ করেছেন হ্যারল্ড পিন্টারের চারটি নাটক।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার এন্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগে স্বরিচত নাটক ছাড়াও নিদের্শনা দিয়েছেন হাইনার ম্যুলারের হ্যামলেটমেশিন, ওয়েডেকিন্ডের বসন্ত জাগরণ, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের চণ্ডালিকা, চিত্রাঙ্গদা ও ডাকঘর অবলম্বনে প্রকৃতি চিত্রা ও অমলের চাড়ালনামা। বিভাগীয় প্রযোজনা শেকসপীয়রের হ্যামলেট ও ব্রেখটের মেজারস টেকেন নাটকে কাজ করেছেন ড্রামাতুর্গ হিসেবে। অভিনয় করেছেন কেয়ারটেকার, লোয়ার ডেপথস, লুক ব্যাক ইন অ্যাংগার, মৃচ্ছকটিক, হোমকামিং ও সংভংচং প্রযোজনায়।
তার রচিত, অনূদিত ও নির্দেশিত নাটক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ বাংলাদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও অঞ্চলে প্রযোজনার পাশাপাশি মঞ্চস্থ হয়েছে ভারত, দক্ষিণ কোরিয়া এবং যুক্তরাজ্যে।
বিভিন্ন সংবাদপত্র, সাময়িকী ও জার্নালে নিয়মিত লিখে চলছেন।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার এন্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের সহকারী অধ্যাপক শাহমান মৈশানের পূর্বপ্রকাশিত বই ‘অশেষকৃত্য’ (২০১৬)।