Showing all 11 results

  • Skills To Grow In Corporate (Sulov)

    G M KAMRUL HASSAN has been working in the FMCG industry in the emerging market of Bangladesh for the last 26 years which includes different corporates of multinationals and national conglomerates. He started his career at Nestle Bangladesh Limited back in 1995. After working at Nestle approx. 12 years, he moved into different companies along with Rahim Afrooz, New Zealand Dairy, Fonterra – New Zealand, Pran-RFL Group, and Abdul Momen Limited. Now he is leading one of the largest B2B e-commerce companies as CEO.
    He did his graduation in Biochemistry and master’s in Nutrition from Dhaka University and also completed his MBA from East-West University.
    He was born in 1970 and spent his childhood in a middle-class family at Netrakona.
    He received Channel I – The Best Corporate Personality Award 2020 & The Business Excellence AWARD – 2017 as South Asian Best CEO (FMCG category) by the SOUTH ASIAN PARTNERSHIP SUMMIT, also received the World Greatest CEO Award 2018-19.

    ৳ 204৳ 240
  • আমার ভাবনায় সেলসম্যানশিপ

    এম আতাউর রহমান রোজেল। বেড়ে ওঠা কুমিল্লায়, ভগবান সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক ও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ থেকে উচ্চমাধ্যমিক শেষে উচ্চশিক্ষার উদ্দেশ্যে ঢাকায় আগমন। বুয়েট থেকে তড়িৎ প্রকৌশল বিষয়ে বিএসসি করেছেন। বলা হয়, বয়স বাড়ার সাথে সাথে প্রত্যেকেই নিজের থেকে বিচ্ছিন্ন হতে শুরু করে। নিজের অন্তর্নিহিত স্পেশালিটি কোন ক্ষেত্রে জীবনকে কীভাবে এগিয়ে নিয়ে যেতে চায়— এসব কেবল নির্লিপ্ত ফ্যান্টাসিতেই পরিণত হয় এক সময়ে। এই কনভেনশনাল চিন্তাকে রীতিমতো চ্যালেঞ্জ জানিয়ে তিনি এগিয়েছেন পাথুরে পথে, সেলসম্যানশিপ তথা নিজের প্রকৃতিপ্রদত্ত গিফটকে ক্যারিয়ারে সফলভাবে প্রতিষ্ঠিত করার লক্ষ্যে ঢাকা ইউনিভার্সিটি থেকে মার্কেটিং বিষয়ে এমবিএ করেছেন পরবর্তী সময়ে। ইঞ্জিনিয়ারিং পেশা থেকে সেলস ও মার্কেটিং ক্যারিয়ার, সাফল্যের সাথে পনের বছরের অভিজ্ঞতা শেষে বর্তমানে ফিলামেন্ট ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেড-এ চেয়ারম্যান পদে অধিষ্ঠিত রয়েছেন। পনের বছরের বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারে তিনি যুক্ত ছিলেন সিঙ্গাপুর বাংলাদেশ লিমিটেড, টেকনো ওয়ার্থ এ্যাসোসিয়েটস লিমিটেড ও অলিম্পাস সিঙ্গাপুর প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানিতে। শৈশব থেকেই সবচাইতে কাছের মানুষ ছিলেন মা ও বাবা। সংগ্রামের সময়গুলোতে আস্থা-ভরসা-স্নেহের উষ্ণতায় জড়িয়েছেন একে অপরকে। জীবন যাত্রার প্রতিটি বাঁকেই তাঁদের দ্বারা প্রভাবিত হয়েছেন বারে বারে। পারিবারিক বন্ধনের ছায়ার আস্তরণে ছোট ভাই সোহেলের প্রতি সন্তানসম স্নেহ ধারণ করেছেন সবসময়েই। নিজের শিশুপুত্রের সাথে সম্পর্কের রসায়নেও তাদেরই খুঁজে বেড়ান অবচেতনে, এখনও! সহধর্মিণীর অসীম অনুপ্রেরণা ক্যারিয়ার ও ব্যক্তি জীবনের উত্থান-পতনকে করেছে স্বস্তির।

    ৳ 305৳ 360
  • করপোরেট কমিউনিকেশন

    রোকসানা আক্তার রুপী একজন স্বনামধন্য করপোরেট ট্রেইনার। বহুমুখী অভিজ্ঞতায় ঋদ্ধ রুপী একজন স্বীকৃত টোস্টমাস্টার, একজন অসাধারণ মেন্টর ও কোচ। কমিউনিকেশনে তার দক্ষতা প্রশ্নাতীত, নেতৃত্বগুণ পরীক্ষিত। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, ইনডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটি (বাংলাদেশ), বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসসহ বিভিন্ন পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করেছেন।
    ট্রেইনার হিসেবে দীর্ঘ ১৬ বছরের অভিজ্ঞতায় ৫ হাজারের বেশি সেশন পরিচালনা করেছেন। বয়স-জাতি-ধর্ম-বর্ণ-পেশানির্বিশেষে প্রায় ৪০ হাজার অংশগ্রহণকারীকে দিকনির্দেশনা দিয়েছেন।
    জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ থেকে ইংরেজিতে বিএ (অনার্স) করার পর ইংরেজি সাহিত্যে মাস্টার্স করেছেন। এছাড়া TESOL-এ নর্থ-সাউথ ইউনিভার্সিটি থেকে মাস্টার্স করার পাশাপাশি TESOL-এ বিশেষায়ন করেছেন অ্যারিজোনা স্টেট ইউনিভার্সিটি থেকে।
    দিনশেষে রোকসানা আমাদেরই একজন। জীবন ও সব জীবিত সত্তার প্রতি প্রবল উৎসাহী রোকসানা ব্যক্তিজীবনে সততা ও একাগ্রতাকেই সর্বোচ্চ আসনে স্থান দিয়েছেন।
    www.trainingwithrokhsana.com

    ৳ 255৳ 300
  • কী যে করি

    গোলাম রাব্বী। স্বপ্ন দেখাই যার নেশা। কেবল নিজেই যে স্বপ্ন দেখেন, তা কিন্তু নয়; অন্যকে স্বপ্ন দেখানো তার আরও বড় নেশা। সবাইকে স্বপ্নপূরণে উদ্বুদ্ধ করতে প্রতিষ্ঠা করেছেন Dream Deviser। যার স্লোগান, ‘স্বপ্ন দেখি, স্বপ্ন দেখাই; পূরণ করি, পূরণ করাই’।
    সর্বদা ভাবেন—একা নয়; সবাই মিলে গড়া যায় বিশ্বমানের বড় কিছু।
    বেড়ে ওঠা মাদারীপুর জেলার কালকিনি থানার এক অজপাড়াগাঁয়ে। গ্রামের সবুজ প্রান্তর আর নীল আকাশ তাকে বানিয়েছে বিশাল হৃদয়ের। নিতে নয়; সব সময় দিতে পছন্দ করেন। মাধ্যমিকে, থানায় প্রথমবারের মতো জিপিএ-৫ প্রাপ্তি তাকে দিয়েছিল এগিয়ে চলার পথ।
    প্রতিযোগিতায় নামতে কখনো ভয় পান না। জাতীয় টেলিভিশন বিটিভির ‘কুইজ কুইজ’ প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে হয়েছেন দেশসেরা। রচনা প্রতিযোগিতা, সাধারণ জ্ঞান, উপস্থিত বক্তৃতা ও বিতর্কে পেয়েছেন অসংখ্য পুরস্কার। বিশ্ব টেলিকমিউনিকেশন্স দিবসে রাষ্ট্রপতি পদক যার অন্যতম।
    জেলা শহরের পত্রিকা দিয়ে লেখার রাজ্যে প্রবেশ। কিশোর বয়সে গ্রাম থেকেই অংশ নিতেন রেডিও ও পত্রিকার নানা আয়োজনে। এরপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগে পড়াকালীন মিডিয়ায় প্রথমে যুক্ত হন ফিচার রাইটার হিসেবে। ক্যারিয়ার ও ইতিবাচক বিষয়ের ফিচার লেখক হিসেবে কাজ করেছেন প্রথম আলো, যুগান্তর, ইত্তেফাক, জাগো নিউজসহ কয়েকটি প্রতিষ্ঠানে। এর মাঝে হঠাৎই পথচলা শুরু বেসরকারি এফএম রেডিওর আরজে হিসেবে। জনপ্রিয় টেলিভিশন চ্যানেল সময় টেলিভিশনে প্রায় এক দশক ধরে যুক্ত আছেন সংবাদ উপস্থাপক হিসেবে।
    এ ছাড়া তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন কর্মকর্তা।
    সৃজনশীল কাজ, আইডিয়া ডেভেলপমেন্ট, ইনোভেশন, প্রযুক্তি ভাবনা এবং নতুন কিছু করাই তার নেশা আর পেশা। লাল-সবুজের পতাকা নিয়ে প্রতিনিধিত্ব করেছেন সার্কভুক্ত দেশসহ বিশ্বের নয়টি দেশে।
    দৃঢ় মানসিকতা, স্বচ্ছতা, লেগে থাকা ও সৎ সাহস তার জীবনের মূল ভিত্তি।

    ওকে, এবার তাহলে ‘কী যে করি’ আর না ভেবে; চলো, বইয়ের লেখক গোলাম রাব্বীর ফেসবুক পেজে একটু ঢুঁ মেরে আাসি— www.facebook.com/golamrabby.dreamdeviser

    ৳ 205৳ 240
  • বিদ্যাকৌশল: লেখাপড়ায় সাফল্যের সহজ ফরমুলা

    ড. রাগিব হাসান একজন কম্পিউটার বিজ্ঞানী ও শিক্ষক। সরকারি চাকুরে মোঃ শামসুল হুদা ও স্কুলশিক্ষিকা রেবেকা সুলতানার সন্তান রাগিবের জন্ম চট্টগ্রামে। স্কুল জীবন থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ পর্যায়— সবখানেই রাগিব অর্জন করেছেন অসাধারণ ভালো ফলাফল। পড়াশোনা করেছেন চট্টগ্রাম কলেজিয়েট স্কুল এবং চট্টগ্রাম কলেজে। এসএসসিতে বিজ্ঞান বিভাগে ৪র্থ ও এইচএসসিতে ১ম স্থান লাভ করেন। বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ভর্তি পরীক্ষায় ১ম স্থান লাভ করে তিনি কম্পিউটার কৌশল বিভাগ হতে সর্বোচ্চ জিপিএ নিয়ে স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন। সব বিভাগে সেরা ফলাফলের জন্য পান চ্যান্সেলর গোল্ড মেডেল। বুয়েটে কিছুদিন শিক্ষকতার পরে উচ্চশিক্ষার্থে যুক্তরাষ্ট্রে যান, সেখানে কম্পিউটার নিরাপত্তার উপরে মাস্টার্স ও পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি— ইউনিভার্সিটি অফ ইলিনয় অ্যাট আরবানা শ্যাম্পেইন থেকে। তারপর যোগ দেন অধ্যাপনা পেশায়। বর্তমানে তিনি ইউনিভার্সিটি অফ আলাবামা অ্যাট বার্মিংহাম এর কম্পিউটার বিজ্ঞানের সহকারী অধ্যাপক এবং সিক্রেটল্যাব নামের গবেষণাগারের প্রতিষ্ঠাতা— গবেষণা করছেন কম্পিউটার নিরাপত্তা ও ক্লাউড কম্পিউটিং নিয়ে। গবেষণার উৎকর্ষের জন্য মার্কিন জাতীয় বিজ্ঞান ফাউন্ডেশন থেকে ২০১৪ সালে পেয়েছেন ক্যারিয়ার পুরস্কার।

    ৳ 240৳ 280
  • মন প্রকৌশল: স্বপ্ন অনুপ্রেরণা আর জীবন গড়ার ফরমুলা

    ড. রাগিব হাসান একজন কম্পিউটার বিজ্ঞানী ও শিক্ষক। সরকারি চাকরিজীবী মো. শামসুল হুদা ও স্কুল শিক্ষিকা রেবেকা সুলতানার সন্তান রাগিবের জন্ম চট্টগ্রামে। পড়াশোনা করেছেন চট্টগ্রাম কলেজিয়েট স্কুল এবং চট্টগ্রাম কলেজে। এসএসসিতে চতুর্থ ও এইচএসসিতে প্রথম মেধাস্থান অধিকার করে পরে তিনি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) কম্পিউটার কৌশল বিভাগ হতে সর্বোচ্চ জিপিএ নিয়ে স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন। সব বিভাগে সেরা ফলাফলের জন্য পান চ্যান্সেলর গোল্ড মেডেল। বুয়েটে কিছুদিন শিক্ষকতার পরে উচ্চশিক্ষার্থে যুক্তরাষ্ট্রে যান এবং ইউনিভার্সিটি অফ ইলিনয় অ্যাট আরবানা শ্যাম্পেইন থেকে। তারপর যোগ দেন অধ্যাপনা পেশায়। বর্তমানে তিনি ইউনিভার্সিটি অফ আলাবামা অ্যাট বার্মিংহাম-এর কম্পিউটার বিজ্ঞানের সহকারি অধ্যাপক এবং সিক্রেটল্যাব নামের গবেষণাগারের প্রতিষ্ঠাতা— গবেষণা করছেন কম্পিউটার নিরাপত্তা ও ক্লাউড কম্পিউটিং নিয়ে। গবেষণার উৎকর্ষের জন্য মার্কিন জাতীয় বিজ্ঞান ফাউন্ডেশন থেকে ২০১৪ সালে পেয়েছেন ক্যারিয়ার পুরস্কার।
    মনোচিকিৎসক স্ত্রী জারিয়া আফরিন চৌধুরী ও ছেলে যায়ানকে নিয়ে রাগিব হাসান বসবাস করেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণের শহর বার্মিংহামে। পেশায় কম্পিউটার বিজ্ঞানী হলেও রাগিবের মন পড়ে থাকে বাংলায়, বাংলা ভাষা ও সংস্কৃতির দিকে। বাংলা উইকিপিডিয়ার শুরু থেকেই নেতৃত্ব দিয়েছেন, বাংলা ব্লগিংয়ের সাথে জড়িত থেকেছেন ২০০৫ সাল থেকে। সবার কাছে জ্ঞানের আলো ছড়াবার জন্য অনলাইনে বাংলায় মুক্ত জ্ঞানের সাইট শিক্ষককম (http//www.shikkhok.com) প্রতিষ্ঠা

    ৳ 205৳ 240
  • মনোসন্ধি: মানসিক চাপ মোকাবিলার সহজ উপায়

    জন্ম: আটোয়ারী, পঞ্চগড়
    মা আয়েশা খাতুন ও বাবা মো. এমদাদুল হক।
    পেশা: শিক্ষকতা। এডুকেশনাল এন্ড কাউন্সেলিং সাইকোলজি বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
    নেশা: শেখা এবং শেখানো
    পড়াশোনা: আটোয়ারী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, ঠাকুরগাঁও সরকারি কলেজ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, ইউনিভার্সিটি অফ ওয়েসমিনিস্টার (লন্ডন)
    প্রকাশিত গ্রন্থ: মানসিক প্রশান্তি আর মর্যাদাপূর্ণ জীবনের জাদুকাঠি (আদর্শ, ২০১৬)
    সাংগঠনিক তৎপরতা: সাংগঠনিক সম্পাদক, বাংলাদেশ এডুকেশনাল এন্ড কাউন্সেলিং সাইকোলজি সোসাইটি; আজীবন সদস্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মনোবিজ্ঞান এলামনাই অ্যাসোসিয়েশন; সদস্য, বাংলাদেশ চাইল্ড এন্ড এডলসেন্স মেন্টাল হেলথ।
    প্রতিষ্ঠাতা এবং সম্পাদক: মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে অনলাইন ভিত্তিক ম্যাগাজিন মনোযোগী মন
    (www.monojogimon.com)
    ব্যক্তিগত জীবন: বিবাহিত এবং এক কন্যা সন্তানের জনক।

    ৳ 170৳ 200
  • মানসিক প্রশান্তি আর মর্যাদাপূর্ণ জীবনের জাদুকাঠি

    জন্ম: আটোয়ারী, পঞ্চগড়
    মা আয়েশা খাতুন ও বাবা মো. এমদাদুল হক।
    পেশা: শিক্ষকতা। এডুকেশনাল এন্ড কাউন্সেলিং সাইকোলজি বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
    নেশা: শেখা এবং শেখানো
    পড়াশোনা: আটোয়ারী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, ঠাকুরগাঁও সরকারি কলেজ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, ইউনিভার্সিটি অফ ওয়েসমিনিস্টার (লন্ডন)
    প্রকাশিত গ্রন্থ: মানসিক প্রশান্তি আর মর্যাদাপূর্ণ জীবনের জাদুকাঠি (আদর্শ, ২০১৬)
    সাংগঠনিক তৎপরতা: সাংগঠনিক সম্পাদক, বাংলাদেশ এডুকেশনাল এন্ড কাউন্সেলিং সাইকোলজি সোসাইটি; আজীবন সদস্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মনোবিজ্ঞান এলামনাই অ্যাসোসিয়েশন; সদস্য, বাংলাদেশ চাইল্ড এন্ড এডলসেন্স মেন্টাল হেলথ।
    প্রতিষ্ঠাতা এবং সম্পাদক: মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে অনলাইন ভিত্তিক ম্যাগাজিন মনোযোগী মন
    (www.monojogimon.com)
    ব্যক্তিগত জীবন: বিবাহিত এবং এক কন্যা সন্তানের জনক।

    ৳ 213৳ 250
  • লোকে কী বলবে?

    আয়মান সাদিক

    বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় অনলাইন স্কুল, 10 Minute School-এর প্রতিষ্ঠাতা আয়মান সাদিক। 10 Minute School-এ প্রতিদিন সাড়ে তিন লাখের বেশি শিক্ষার্থী বিনা মূল্যে পড়াশোনা করছে। তিনি বাংলাদেশের শিক্ষাব্যবস্থায় অভূতপূর্ব অবদান রাখার জন্য ইতিমধ্যেই রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের কাছ থেকে পেয়েছেন Queen’s Young Leader পুরস্কার। এ ছাড়া ২০১৮ সালে তিনি বিশ্বের স্বনামধন্য ফোর্বস ম্যাগাজিনের 30 Under 30 লিস্টে অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন। তাঁর প্রথম বই ‘Never Stop Learning’ ছিল ২০১৮ সালের ‘অমর একুশে বইমেলা’র বেস্টসেলার। ২০১৯ সালে প্রকাশিত ‘ভাল্লাগে না’- বইটিও ছিল বইমেলার বেস্টসেলার । তিনি তাঁর ফেসবুক পেইজ ও ইউটিউব চ্যানেল থেকে প্রতিদিন শিক্ষণীয় নানা বিষয়ে ভিডিও তৈরি করে লাখো শিক্ষার্থীকে বিনা মূল্যে শিক্ষাদান করে যাচ্ছেন।

    ৳ 217৳ 255
  • সুখের অসুখ

    মো. আব্দুল হামিদ: শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক। পিএইচডি ও এমএসসি করেছেন হসপিটালিটি ও ট্যুরিজম বিষয়ে। এমবিএ ও বিবিএ পড়েছেন মার্কেটিং শেখার লক্ষ্যে। প্রাতিষ্ঠানিক পড়ালেখার পাশাপাশি জীবনঘনিষ্ঠ নানা বিষয়ে নিয়মিত জানতে ও বুঝতে চেষ্টা করছেন। আমাদের দেশে প্যাশন ও প্রফেশন একই বিন্দুতে মিলিত হওয়া ব্যক্তির সংখ্যা অতি নগণ্য। সেদিক থেকে নিঃসন্দেহে তিনি ভাগ্যবান। আজীবন নতুন নতুন বিষয় শেখা এবং সেগুলো অন্যদের সাথে শেয়ার করার সুযোগের সদ্ব্যবহারে রয়েছেন সদা সচেষ্ট। পড়া ও লেখা তার পেশা ও নেশা। প্রকাশিত গ্রন্থ শিক্ষা স্বপ্ন ক্যারিয়ার, মার্কেটিংয়ের সহজপাঠ, বিশ্ব-প্রেক্ষাপটে বাংলাদেশের পর্যটন, ফেইলিওর ইন সেলস, পোস্ট ক্রাইসিস বিজনেস, কাউ টু ক্রিপ্টোকারেন্সি (টাকার ইতিহাস), মস্তিষ্কের মালিকানা, একটা কিছু করো প্লিজ…, ও ভাইরালের ভাইরাস বইগুলো ইতোমধ্যে তাকে স্বতন্ত্রধারার লেখক হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছে।

    ৳ 425৳ 500
  • স্কিলস টু গ্রো ইন করপোরেট

    জি এম কামরুল হাসান বিগত ২৬ বছর ধরে বাংলাদেশের উদীয়মান মার্কেটে এফএমসিজি ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করছেন, যার মধ্যে রয়েছে বহুজাতিক এবং জাতীয় সংস্থার বিভিন্ন কর্পোরেশন। তিনি ১৯৯৫ সালে নেসলে বাংলাদেশে মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে তার কর্মজীবন শুরু করেন। প্রায় ১২ বছর নেসলেতে কাজ করার পর তিনি আর যে যে কোম্পানিতে কাজ করেন তার মধ্যে রয়েছে রহিম আফরোজ, নিউজিল্যান্ড ডেইরি, ফন্টেরা–নিউজিল্যান্ড, প্রাণ-আরএফএল গ্রুপ এবং আব্দুল মোনেম লিমিটেড। বর্তমানে তিনি সিইও পদে সবচেয়ে বড় B2B ই-কমার্স কোম্পানিগুলোর একটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন।
    তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োকেমিস্ট্রি থেকে গ্র্যাজুয়েশন, নিউট্রিশন থেকে মাস্টার্স এবং ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি থেকে এমবিএ সম্পন্ন করেন।
    ১৯৭০ সালে নেত্রকোনার এক মধ্যবিত্ত পরিবারে তাঁর জন্ম এবং সেখানেই তাঁর শৈশব অতিবাহিত হয়।
    তিনি চ্যানেল আই-এর ‘দ্য বেস্ট কর্পোরেট পার্সোনালিটি এওয়ার্ড ২০২০’ এবং সাউথ এশিয়ান পার্টনারশিপ সামিট থেকে সাউথ এশিয়ান বেস্ট সিইও (এফএমসিজি) ক্যাটাগরিতে দ্য বেস্ট এক্সিল্যান্স এওয়ার্ড—২০১৭ গ্রহণ করে সম্মানিত হয়েছেন। এছাড়াও ‘ওয়ার্ল্ড গ্রেটেস্ট সিইও’ এওয়ার্ড ২০১৮-১৯ অর্জন করেছেন।

    ৳ 238৳ 280