Showing all 8 results

  • আত্মপক্ষ ও অন্যান্য গল্প

    মোরশেদ শফিউল হাসান
    জন্ম ১৯৫৩ সালের ২১ মার্চ (৭ চৈত্র ১৩৬০)। লেখাপড়া করেছেন চট্টগ্রামের পলোগ্রাউন্ড রেলওয়ে স্কুল, কলেজিয়েট স্কুল ও চট্টগ্রাম সরকারি কলেজে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে সম্মানসহ স্নাতকোত্তর। একই বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচডি।
    দেশের বিভিন্ন সরকারি কলেজে ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেছেন। দীর্ঘ সময় শিক্ষা সংশ্লিষ্ট দাপ্তরিক কাজেও নিয়োজিত ছিলেন। ঢাকার সরকারি বিজ্ঞান কলেজের অধ্যক্ষ হিসেবে অবসর গ্রহণের পর বর্তমানে দেশের শীর্ষস্থানীয় প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান ‘প্রথমা’র সঙ্গে পরামর্শক হিসেবে যুক্ত আছেন। কর্মজীবনের শুরুতে বেশ কিছুকাল বিভিন্ন পত্রিকায় সাংবাদিকতা করেছেন। এখনও মাঝে মাঝে পত্রপত্রিকায় কলাম লেখেন।
    প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ষাটের অধিক। এর মধ্যে রয়েছে প্রবন্ধ, গবেষণা, কবিতা, উপন্যাস, অনুবাদ, শিশু-কিশোর সাহিত্য, জীবনী, জনপ্রিয় বিজ্ঞান, সাময়িক প্রসঙ্গধর্মী বা সামাজিক-রাজনৈতিক বিশ্লেষণমূলক রচনা ইত্যাদি। সম্পাদনাও করেছেন বেশ কিছু বই।
    প্রবন্ধ ও গবেষণায় বাংলা একাডেমি ও আহমদ ছফা সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন।

    ৳ 136৳ 160
  • ঘুড্ডি ভোকাটা

    সৈয়দ মুহাম্মদ জুবায়ের
    জন্ম রংপুরের গুপ্তপাড়ায়। বাবা সৈয়দ জিয়াউল হক, মা জাহেদা খাতুন।
    ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলা বিভাগ থেকে অনার্স ও মাস্টার্স সম্পন্ন করে পরবর্তীতে টেলিভিশন, ফিল্ম এন্ড ফটোগ্রাফি বিভাগ থেকে মাস্টার্স করেন। বর্তমানে তেজগাঁও কলেজে থিয়েটার এন্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগে শিক্ষকতায় নিয়োজিত।
    লেখালেখির পাশাপাশি মঞ্চে ও চলচ্চিত্রে অভিনয় ও নির্দেশনায় কাজ করছেন। তার প্রথম গল্পের বই কাল্পনিক বাস্তবতা ২০২০ সালে অমর একুশে বইমেলায় প্রকাশিত হয়েছে।

    ৳ 255৳ 300
  • পানকৌড়ির রক্ত

    আল মাহমুদ

    ১৯৩৬ খ্রিস্টাব্দের ১১ জুলাই তিতাস-এর পলি বিধৌত ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার মোড়াইল গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে আল মাহমুদ জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পুরো নাম মীর আব্দুস শুকুর আল মাহমুদ। প্রথম প্রকাশিত কাব্যগ্রন্থ লোক লোকান্তর (১৯৬৩)। লোক লোকান্তর ও কালের কলস- মাত্র এ দুটি কাব্যগ্রন্থের জন্য ১৯৬৮ সালে বাংলা একাডেমী পুরস্কারে ভূষিত হন। সোনালি কাবিন (১৯৭৩) তাকে খ্যাতির শীর্ষে পৌছায়। ১৯৭১ এর মুক্তিযুদ্ধের পর তিনি গল্প লেখার দিকে মনোযোগী হন। ১৯৭৫ সালে তার প্রথম ছোট গল্পগ্রন্থ পানকৌড়ির রক্ত প্রকাশিত হয়। ১৯৯৩ সালে বের হয় তার প্রথম উপন্যাস কবি ও কোলাহল। আল মাহমুদ সাংবাদিক হিসেবে তার কর্মজীবন শুরু করেন। ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের পরে তিনি দৈনিক গণকণ্ঠ পত্রিকায় সহকারী সম্পাদক হিসেবে যোগ দেন। সাহিত্যপ্রতিভার স্বীকৃতি স্বরূপ তিনি একুশে পদকসহ বেশ কিছু সাহিত্য পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন। এর মধ্যে ফিলিপস সাহিত্য পুরস্কার, অগ্রণী ব্যাংক শিশুসাহিত্য পুরস্কার, ফররুখ স্মৃতি পুরস্কার ও জীবনানন্দ দাশ স্মৃতি পুরস্কার অন্যতম। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি পাঁচ পুত্র ও তিন কন্যার জনক। মরহুমা সৈয়দা নাদিরা বেগম তাঁর স্ত্রী।

    ৳ 170৳ 200
  • প্রেমময় দাম্পত্য

     

    ফরিদা আকতার পেশায় একজন মনোবিজ্ঞানী। তিনি ‘ইনার ফোর্স’ নামে একটি কনসালটিং ফার্মের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা। তিনি ১৯৮৬ সাল থেকে ফলিত মনোবিজ্ঞান (Applied Psychology) বিষয়ে কাজ করে আসছেন। ইনার ফোর্সের মাধ্যমে তিনি জাতিসংঘ, আন্তর্জাতিক এনজিও, জাতীয় এনজিও এবং সরকারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে প্রচুর কাজ করেছেন। এছাড়া তিনি ছয়টি দেশে আটবার (৮) আন্তর্জাতিক কনসালট্যান্ট হিসেবে কাজ করেছেন। দেশগুলো হলো মালদ্বীপ, আফগানিস্তান, তুর্কমেনিস্তান, ভিয়েতনাম, নেপাল, কিরগিজস্তান ইত্যাদি।
    ইনার ফোর্সের মাধ্যমে ফরিদা আকতারের শিশুদের জন্য ২৫টি গল্পের বই প্রকাশিত হয়েছে। অনিন্দ্য প্রকাশ থেকে ২০১৬ সালে দুটো বই প্রকাশিত হয়। এ ছাড়া এই লেখকের অন্যান্য প্রশিক্ষণ ম্যানুয়াল বিভিন্ন সংস্থার মাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। যেমন— ইউএনডিপি, ইউনেসকো বাংলাদেশ, সেভ দ্য চিলড্রেন বাংলাদেশ, ব্র্যাক, শিশু একাডেমি প্রভৃতি।
    ফরিদা আকতার মূলত শিশু বিকাশ, ব্যক্তিগত-পেশাগত উন্নয়ন, আনন্দে শেখা, মনোসামাজিক কাউন্সেলিং, দাম্পত্যজীবন প্রভৃতি বিষয়ে লেখালেখি করেন। তিনি ইউনিসেফ, ইউএনডিপি, ইউনেসকো বাংলাদেশ, সেভ দ্য চিলড্রেন বাংলাদেশ, কেয়ার বাংলাদেশ, প্ল্যান বাংলাদেশ, কনসার্ন, ব্র্যাক, ব্র্যাক ইউনিভার্সিটিসহ নানা সংস্থায় কনসালট্যান্ট হিসেবে কাজ করেন। এ ছাড়া তিনি বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে মনোবিজ্ঞান বিষয়ক অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে থাকেন। হেলথ কেয়ার বাংলা নামক একটি ইউটিউব প্ল্যাটফর্মে তার মনোবিজ্ঞানের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনার ভিডিওগুলো পাওয়া যায়।

    ৳ 204৳ 240
  • বর্ষার বিয়ে

    পারমিতা হিমের জন্ম ২৫শে ডিসেম্বর, ১৯৮৯, চট্টগ্রামে। প্রি-ক্যাডেট ট্যালেন্ট স্কুলে প্রাথমিক, চট্টগ্রাম সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক ও চট্টগ্রাম কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেন। স্নাতক করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটে। বেসরকারি টিভি চ্যানেল ইনডিপেনডেন্ট ও সময় টেলিভিশনে সংবাদকর্মী হিসেবে কাজ করেছেন সাত বছর। ২০১৯ সালে ব্রিটিশ ব্রডকাস্টিং করপোরেশন (বিবিসি)-র বাংলা বিভাগে যোগ দেন মাল্টিমিডিয়া ব্রডকাস্ট জার্নালিস্ট হিসেবে। তার প্রথম উপন্যাস নারগিস প্রকাশিত হয় ২০১৮ সালে। ২০১৯-এ প্রকাশিত উত্তম ও মানসীর রহস্যময় প্রেম তার দ্বিতীয় উপন্যাস। তিনি ২০২১ সাল থেকে নিউ ইয়র্কে বসবাস শুরু করেন। এখন ডিজিটাল কনটেন্ট ক্রিয়েটর হিসেবে নিজের প্ল্যাটফর্মেই কাজ করেন তিনি।
    paromitaheem.com
    youtube.com/paromitaheem
    fb.com/paromitaheempage

    ৳ 204৳ 240
  • ব্যক্তিগত বসন্তদিন

    মাহবুব মোর্শেদ
    সম্পর্ক ও যাপনে ফেসবুক-টেকনোলজির গভীর অভিঘাত নিয়ে রচিত উপন্যাস— ‘ফেস বাই ফেস’ চমকে দিয়েছিল পাঠককে। তৃতীয় উপন্যাস ‘তোমারে চিনি না আমি’ একটি প্রজন্মের তরুণদের দাঁড় করিয়ে দিয়েছে ব্যক্তিগত ও গোপন আয়নার সামনে। ‘ব্যক্তিগত বসন্তদিন’ ও ‘দেহ’ গ্রন্থের গল্পগুলোতে পাঠক খুঁজে পেয়েছেন অতিপরিচিত পরিপার্শ্বের নবআবিষ্কৃত বিবরণ। পরিচিত ঘটনাবলী মাহবুব মোর্শেদের গল্পে আসে নতুন আবিষ্কার, চমক আর বুননে সজ্জিত হয়ে। স্বতঃস্ফূর্ত ভাষা বুনে দেয় রহস্যময় সংযোগ। তার স্টোরিটেলিং সব সময়ই আকর্ষক, স্বাগত জানানোর জন্য প্রস্তুত। গদ্য সরল, কিন্তু দ্ব্যর্থকতায় ভরপুর—ইশারা আর পরিহাসে ঠাসা। তার কবিতা লিপ্সা, আকাঙ্ক্ষা, তাড়না ও প্রেমের আরেক উন্মীলন।
    জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেছেন প্রত্নতত্ত্ব নিয়ে। পেশা সাংবাদিকতা। শৈশব-কৈশোর কেটেছে উত্তরের রংপুর, দিনাজপুর, পঞ্চগড়, গাইবান্ধা ও দক্ষিণ-পশ্চিমের কুষ্টিয়ায়। এক সময় বিচিত্র বিষয়ে লিখতেন ব্লগে। এখন ফেসবুকে লেখেন নানা বিষয়ে ছোট ছোট কথা।
    প্রকাশিত বই
    ফেস বাই ফেস, উপন্যাস, ২০১০
    দেহ, গল্পগ্রন্থ, ২০১১
    অর্ধেক জাগ্রত রেখে, নভেলা, ২০১৩
    গুরু ও চণ্ডাল, স্মৃতিগ্রন্থ, ২০১৩
    তোমারে চিনি না আমি, উপন্যাস, ২০১৮
    অরব বসন্ত, কবিতা, ২০২০
    ফেসবুক প্রোফাইল
    https://www.facebook.com/tomorshed

    ৳ 205৳ 240
  • মেয়েদের এমন হয়

    ২০১১ সালে তার প্রথম গল্পের বই ‘মানবসঙ্গবিরল’ নজর কেড়েছিল অনেকের। তারও আগে ব্লগে লেখালেখি ও সাহিত্য সমালোচনার মধ্য দিয়ে তিনি আলোচনায় আসেন। তিন বছর বিরতির পর লেখেন উপন্যাস ‘গায়ে গায়ে জ্বর’। তারপর আবার বিরতি। এবারের বইমেলায় এনেছেন গল্পের বই ‘মেয়েদের এমন হয়’।
    বাংলা সাহিত্যকে ক্রমে সহজ ও স্থানীয় করে তোলার প্রয়াস তার তিন বইয়ে বিদ্যমান। তুমুল লিখে চলেছেন ফেসবুকে। প্রতিষ্ঠিত মাধ্যমের বাইরে নিজস্ব এক ভঙ্গি গড়ে তোলায় তিনি সদা সরব। তার এবারের বইটি সমসাময়িকদের ছাড়িয়ে যাওয়া।
    জন্মগ্রহণ করেছেন ফেনীতে, আশির দশকে। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা শেষ করে বর্তমানে সাংবদিক হিসেবে চাকরি করে আসছেন বিভিন্ন পত্রিকায়।
    তার সঙ্গে যোগাযোগ
    [email protected]
    facebook.com/salah.u.shuvro

    ৳ 255৳ 300
  • শ্রেষ্ঠ গল্প

    আল মাহমুদ

    আল মাহমুদ ১৯৩৬ সালের ১১ জুলাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মোড়াইল গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পুরো নাম মীর আব্দুস শুকুর আল মাহমুদ। হাইস্কুলে পড়াশোনাকালেই ঢাকা ও কলকাতার বিখ্যাত সাহিত্য পত্রিকাগুলোতে তার কবিতা প্রকাশিত হতে থাকে। বুদ্ধদেব বসু সম্পাদিত কবিতা পত্রিকায় তার কবিতা প্রকাশিত হলে সমসাময়িক কবি মহলে তাকে নিয়ে আলোচনার সূত্রপাত।
    প্রথম প্রকাশিত কাব্যগ্রন্থ লোক লোকান্তর (১৯৬৩)। লোক লোকান্তর ও কালের কলস—মাত্র এই দুটি কাব্যগ্রন্থের জন্য ১৯৬৮ সালে বাংলা একাডেমি পুরস্কারে ভূষিত হন। সোনালি কাবিন (১৯৭৩) তাকে খ্যাতির শীর্ষে পৌঁছায়। ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের পর তিনি গল্প লেখার দিকে মনোযোগী হন। ১৯৭৫ সালে তার প্রথম ছোট গল্পগ্রন্থ পানকৌড়ির রক্ত প্রকাশিত হয়। ১৯৯৩ সালে বের হয় তার প্রথম উপন্যাস কবি ও কোলাহল।
    ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের পরে তিনি দৈনিক গণকণ্ঠ পত্রিকায় সহকারী সম্পাদক হিসেবে যোগ দেন। সাহিত্যপ্রতিভার স্বীকৃতিস্বরূপ তিনি একুশে পদকসহ বেশ কিছু সাহিত্য পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন। এর মধ্যে ফিলিপস সাহিত্য পুরস্কার, অগ্রণী ব্যাংক শিশুসাহিত্য পুরস্কার, ফররুখ স্মৃতি পুরস্কার ও জীবনানন্দ দাশ স্মৃতি পুরস্কার অন্যতম। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি পাঁচ পুত্র ও তিন কন্যার জনক। মরহুমা সৈয়দা নাদিরা বেগম তার স্ত্রী।

    ৳ 680৳ 800